মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০ ২৪
জকিগঞ্জ প্রতিনিধি::
৬ জুন ২০ ২৪
৭:৩৩ অপরাহ্ণ

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নতুন মুখ
জকিগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান পুনরায় বিজয়ী

সিলেটের জকিগঞ্জে প্রতিকুল আবহাওয়া ও বন্যা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওযার আগেই উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৫ জুন (বুধবার) জকিগঞ্জ উপজেলায় এ ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয় ।

জকিগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আলহাজ্ব লোকমান উদ্দিন চৌধুরী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মাওলানা আব্দুস সবুর পুনরায় বিজয়ী হয়েছেন।

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে সুলতানা আক্তার বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছে। চতুর্থ ধাপে ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ফলাফল ও পরিবেশন কেন্দ্র থেকে বেসরকারি ফলাফল আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা করা হয়।

ফলাফল ঘোষণা করেন, সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আফসানা তাসলিম মিতু। উপজেলার অডিটোরিয়ামে হাজারো উতসুক ভোটারদের উপস্থিতিতে এই ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

এই নির্বাচনে ভোট পরে শতকরা ৩১.৫৬। উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান পদে দোয়াত কলম প্রতীক নিয়ে ৩০ হাজার ৬শ ৮৯ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব লোকমান উদ্দিন চৌধুরী, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী কাপ পিরিচ প্রতীকের জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম নেতা মাওলানা বিলাল আহমদ ইমরান পেয়েছেন ২২ হাজার ২শ ৮ ভোট।

অন্যদিকে ভাইস চেয়ারম্যান পদে চশমা প্রতীক নিয়ে ১৯হাজার ৯শ ১৩ ভোট পেয়ে পুনরায নির্বাচিত হয়েছেন আনজুমানে আল-ইসলাহ নেতা মাওলানা আব্দুস সবুর। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নুরুল ইসলাম সোহেল তালা প্রতীকে পেয়েছেন ১৪ হাজার ৯শ ৩৭ভোট।

আবার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ফুটবল প্রতীকে ৩০হাজার ৪শ ৭৭ ভোট পেয়ে জয় লাভ করেছেন সুলতানা আক্তার। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদিকা মাজেদা রওশন শ্যামলী কসল প্রতীকে পেয়েছেন ২৬ হাজার ৭শ ০৭ ভোট।

এবারের নির্বাচনে জকিগঞ্জে আওয়ামী লীগের ৩ টি গ্রুপের দুটি গ্রুপই আওয়ামীলীগ সভাপতি লোকমান উদ্দীন চৌধুরীর প্রকাশ্য বিরোধিতা করে জমিয়তের প্রার্থীকে সমর্থন দিয়ে মাঠে ছিলেন। এতে করে জমিয়ত সমর্থিত প্রার্থী সুবিধাজনক অবস্থানে থাকলেও আল-ইসলাহ সমর্থকদের সমর্থনের কারনে সহজেই নির্বাচনী বৈতরণী পার হন লোকমান উদ্দীন চৌধুরী। জকিগঞ্জ সহ বৃহত্তর সিলেটে আল্লামা ফুলতলী ছাহেব কিবলাহ (রহ) এর অনুসারী আল-ইসলাহ বড় ফ্যাক্টর।

যে কোন নির্বাচনের হিসেব নিকেশ উল্টে দিতে আল-ইসলাহ অনুসারীরা যতেষ্ট প্রভাব রাখেন। গত সংসদ নির্বাচনে এই আসনে আওয়ামীলীগের প্রার্ধী বীরমুক্তিযোদ্ধা মাসুকউদ্দিন আহমদ ও আওয়ামী লীগের অপর প্রার্থী ড. আহমদ আল-কবিরকে হারিয়ে বিপুল ভোটে বিজয়ী হন আনজুমানে আল-ইসলাহ সভাপতি মাওলানা হুছামুদ্দীন চৌধুরী ফুলতলী।

ভাইস চেয়ারম্যান পদেও আল-ইসলাহ নেতা মাওলানা আব্দুস সবুর এবারও বিপুল ভোটে বিজয়ী হন। বুধবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে বেলেট পেপার ও পর্যাপ্ত নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে ৭৭টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলে।

নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানববৃন্দ জকিগঞ্জ উপজেলাবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আফসানা তাসলিম মিতু জানান, নির্বাচনে কোন ধরনের অপ্রিতিকর ঘটনা ঘটেনি। সুন্দর পরিবেশের মধ্য দিয়ে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। এছাড়াও প্রশাসনের পক্ষ থেকে সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন তিনি।

ফেইসবুক কমেন্ট অপশন
এই বিভাগের আরো খবর
পুরাতন খবর খুঁজতে নিচে ক্লিক করুন


আমাদের ফেসবুক পেইজ